ছবি ভিডিও

বাংলাদেশ বুধবার 25, April 2018 - ১২, বৈশাখ, ১৪২৫ বাংলা

উৎপাদন ৩০ গুণ বেশি

ঘরে ভেতরে আধুনিক ও বিজ্ঞানসম্মত পদ্ধতিতে মাছ চাষ

অনলান ডেস্ক: | প্রকাশিত ০৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৫:৪৫:২৯

আধুনিক ও বিজ্ঞানসম্মত পদ্ধতিতে ঘরের ভেতর মাছ চাষ করে পুকুরের চেয়ে প্রায় ৩০ গুণ বেশি উৎপাদন সম্ভব। অর্থাৎ এক ঘনমিটার পুকুরে দুই কেজি মাছ হলে আরএএস (রিসার্কুলেটিং অ্যাকুয়াকালচার সিস্টেম) পদ্ধতিতে ৫০ থেকে ৬০ কেজি মাছ উৎপাদন করা যায়। বাংলাদেশে এ প্রযুক্তিতে প্রথম মাছ চাষ শুরু করেন ‘ফিশ হ্যাচারি ও কালচার ফার্ম অ্যাগ্রো থ্রি’র স্বত্বাধিকারী এবিএম শামসুল আলম বাদল। তিনি এ দাবি করেন।বাংলাদেশে একেবারে নতুন হলেও বিশ্বের বিভিন্ন দেশে এ পদ্ধতি খুবই জনপ্রিয়। দেরিতে হলেও দেশে এ পদ্ধতিতে মাছ চাষ শুরু হয়েছে। ময়মনসিংহের মৎস্য চাষি এ বি এম শামছুল আলম বাদল ব্যক্তিগত উদ্যোগে আরএএস পদ্ধতি ব্যবহার করে মাছ উৎপাদন শুরু করে সফলতা পেয়েছেন। তিনি জানান, উন্নতমান ও স্বাস্থ্যসম্মত আধুনিক প্রযুক্তি হিসেবে এটি সারা বিশ্বেই সমাদৃত। এ প্রযুক্তিতে তিনি শহরের বিসিক শিল্পনগরীর একটি টিনশেড প্লটে ১০ টন ধারণ ক্ষমতাসম্পন্ন ৮টি ট্যাঙ্ক স্থাপন করেন।

প্রতিটি ট্যাঙ্কে পাইপ দিয়ে মেকানিক্যাল ফিল্টার সংযুক্ত করা হয়। এ মেকানিক্যাল ফিল্টার প্রতিটি ট্যাঙ্কের মাছ ও মৎস্য খাদ্যের বর্জ্য পরিষ্কার করে। পরে এ পরিষ্কার পানি পাম্প দিয়ে বায়োফিল্টারে উত্তোলন করা হয়। এ ছাড়া মাছের বৃদ্ধি যেন বাধাগ্রস্ত না হয়, সে জন্য বিভিন্ন প্রযুক্তি ব্যবহার করে পানি পরিশোধন করা হয়। এ প্রযুক্তিতে উৎপাদিত মাছের গুণগতমান উন্নত ও স্বাস্থ্যসম্মত।

বাদল জানান, ২০ বছর ধরে মাছ চাষ ও প্রযুক্তি উন্নয়নে কাজ করে আসছেন তিনি। এ ব্যবসার সূত্র ধরে তিনি বেশ কয়েকবার বিদেশ সফর করেন। বিভিন্ন দেশে গিয়ে তিনি দেখতে পান ঘরের ভেতরে মাছ চাষ করার প্রযুক্তি।
‘আরএএস’ প্রযুক্তি দেখে তিনি ময়মনসিংহ বিসিক শিল্পনগরীতে কাজ শুরু করেন। বিদেশ থেকে যন্ত্রাংশ আমদানি করে প্রায় ৫০ লাখ টাকা ব্যয়ে ১ আগস্ট ৫০ শতাংশ জমিতে ১০ টন ধারণ ক্ষমতাসম্পন্ন ৮টি ট্যাঙ্ক স্থাপন করেন। এ পদ্ধতিতে ক্যাটফিশ জাতীয় মাছ (পাবদা, গোলসা, শিং, মাগুর) চাষ করা হয়। ৮টি ট্যাঙ্কে তিনি পাবদা ও গোলসা মাছ চাষ করছেন। নভেম্বরের শেষ সপ্তাহে তিনি মাছ বিক্রি করতে পারবেন বলে জানান। তিনি আরও জানান, চার মাসে প্রতিটি ট্যাঙ্কে আনুমানিক ৬শ’ কেজি মাছ উৎপন্ন হবে। প্রতি কেজির উৎপাদন খরচ হবে দুইশ’ টাকা। প্রতি কেজি চারশ’ টাকা দরে বিক্রি করতে পারবেন বলে তার ধারণা। এ পদ্ধতিতে মাছের খাদ্য কম লাগে এবং বিদ্যুৎ সাশ্রয়ী। এ প্রযুক্তিতে উৎপাদিত মাছ আকারে বড় হয়। রোগবালাই ও মড়কের আশঙ্কা নেই। ফলে এই মাছ উচ্চ মানসম্পন্ন ও স্বাস্থ্যসম্মত।

বাংলাদেশের অ্যাকুয়াকালচারের জনক ও বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য প্রফেসর ড. আনোয়ারুল ইসলাম বলেন, এরই মধ্যে বিভিন্ন দেশে এ পদ্ধতিতে মাছ চাষ লাভজনক হয়ে উঠছে। ময়মনসিংহে অ্যাগ্রো থ্রির স্বত্বাধিকারী এবিএম শামসুল আলম বাদল দেশে প্রথম এ পদ্ধতিতে মাছ চাষ শুরু করেন। এটি পরীক্ষামূলক অবস্থায় আছে। আগামী ডিসেম্বরে মাছ উৎপাদনের পরিমাণ ও খরচ দেখে এর সফলতা সম্পর্কে মতামত দেওয়া যাবে। তিনি বলেন, তবে মাছ চাষের এ পদ্ধতিতে পানি পরিশোধন করে তা ব্যবহার করা হয়। অল্প জায়গায় অধিক উৎপাদন, কোনো ধরনের সংক্রমণ না হওয়া এবং শতভাগ নিরাপদ হওয়ায় বিশ্বে এটি দ্রুত জনপ্রিয় হয়ে উঠছে।


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন


এ সম্পর্কিত খবর

বদরুলের দ্রুত শাস্তির দাবিতে সিলেটজুড়ে বিক্ষোভ

বদরুলের দ্রুত শাস্তির দাবিতে সিলেটজুড়ে বিক্ষোভ

কলেজছাত্রী খাদিজার ওপর হামলাকারী ছাত্রলীগ নেতা বদরুলের দ্রুত ও সর্বোচ্চ শাস্তি চায় সিলেটবাসী। এই

'স্বল্প সময়ের মধ্যেই জঙ্গিবাদ নিয়ন্ত্রণ করা হয়েছে'

'স্বল্প সময়ের মধ্যেই জঙ্গিবাদ নিয়ন্ত্রণ করা হয়েছে'

বাংলাদেশের মানুষ ধর্মভীরু হলেও ধর্মান্ধ নয়। এ দেশের মানুষ কখনোই জঙ্গিবাদকে সমর্থন দেয়নি। দেশের মানুষের

জয় - আওয়ামী লীগের সম্মেলনে যোগ দেবেন

জয় - আওয়ামী লীগের সম্মেলনে যোগ দেবেন

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ২০তম জাতীয় সম্মেলনে যোগ দেবেন প্রধানমন্ত্রীর তথ্য ও প্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব


মিতু হত্যা: মুসাকে ধরিয়ে দিলে ৫ লাখ টাকা পুরস্কার

মিতু হত্যা: মুসাকে ধরিয়ে দিলে ৫ লাখ টাকা পুরস্কার

প্রাক্তন পুলিশ সুপার বাবুল আক্তারের স্ত্রী মাহমুদা খানম মিতু হত্যা মামলার অন্যতম সন্দেহভাজন আসামি

দৈনিক যশোর পত্রিকার প্রকাশক,সম্পাদক,বার্তা সম্পাদকের বিরুদ্ধে মিথ্যা,মামলা প্রতাহারের  দাবি 

দৈনিক যশোর পত্রিকার প্রকাশক,সম্পাদক,বার্তা সম্পাদকের বিরুদ্ধে মিথ্যা,মামলা প্রতাহারের  দাবি 

উজ্জ্বল রায়, নড়াইল জেলা প্রতিনিধি:দৈনিক যশোর পত্রিকার প্রকাশক,সম্পাদক,বার্তা সম্পাদকের বিরুদ্ধে মিথ্যা,মামলা প্রতাহার দাবিতে নড়াইল জেলা

বগুড়ায় দু’টি বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ৭

বগুড়ায় দু’টি বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ৭

ধবগুড়া প্রতিনিধি : বগুড়ার শিবগঞ্জ উপজেলায় ঢাকা-রংপুর মহাসড়কে দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে পাঁচ নারী নিহত


খাদিজার হামলাকারি বদরুল আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে

খাদিজার হামলাকারি বদরুল আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে

সলেট প্রতিনিধি: আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন সিলেটে কলেজছাত্রী খাদিজা আক্তার নার্গিসকে হত্যাচেষ্টাকারী বদরুল আলম

ভুলুন্ঠিত মানবতাকে রক্ষা করলেন ইমরান, মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন খাদিজা

ভুলুন্ঠিত মানবতাকে রক্ষা করলেন ইমরান, মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন খাদিজা

সিলেট জেলা প্রতিনিধি :: মানতার দুষমন, নিষ্ঠুর অমানুষ বদরুলের চাপাতির আঘাতে ভুলুন্ঠিত মানবতা। ধারালো চাপাতির

নড়াইলে যুদ্ধাপরাধী  দেলোয়ার হোসেনের ফাঁসির দাবীত - সমাবেশ ও মানববন্ধন

নড়াইলে যুদ্ধাপরাধী  দেলোয়ার হোসেনের ফাঁসির দাবীত - সমাবেশ ও মানববন্ধন

উজ্জ্বল রায়, নড়াইল জেলা প্রতিনিধি  ইকবাল মৃধা হত্যা মামলার আসামী, যুদ্ধাপরাধী ও রাজাকার দেলোয়ার হোসেন



আরো সংবাদ


আইফোন ৭ ও ৭ প্লাস-এ যা আছে

আইফোন ৭ ও ৭ প্লাস-এ যা আছে

০৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৫:১৭


ল্যাপটপের চার্জ বাঁচাতে ৪ কাজ করবেন না

ল্যাপটপের চার্জ বাঁচাতে ৪ কাজ করবেন না

০৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১২:১০

নষ্ট স্মার্টফোন থেকে মিলবে স্বর্ণ!

নষ্ট স্মার্টফোন থেকে মিলবে স্বর্ণ!

০২ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১১:৪৫


পেনড্রাইভ বারবার ফরম্যাট?

পেনড্রাইভ বারবার ফরম্যাট?

২৮ অগাস্ট, ২০১৬ ১৬:৫২







ব্রেকিং নিউজ












খাদিজার জীবন নিয়ে এখনো আশঙ্কা

খাদিজার জীবন নিয়ে এখনো আশঙ্কা

০৫ অক্টোবর, ২০১৬ ১৫:৫৪